পন্ডিত সক্রেটিসের একটি মজার ঘটনা


সক্রেটিসের (৪৬৯/৪৭০ খ্রিষ্টপূর্ব-৩৯৯ খ্রিষ্টপূর্ব) মায়ের নাম ছিলো ফেনারিটি; পেশায় ছিলেন ধাত্রী। সক্রেটিস তাঁর কাজের সাথে মায়ের পেশার তুলনা দিতে পছন্দ করতেন। তিনি প্রায়ই বলতেন, তিনি তাঁর মায়ের মতই ধাত্রীর কাজ করে থাকেন। তাঁর মা যেমন মানবশিশু প্রসবে সহায়তা করতেন, তেমনি তিনিও সহায়তা করেন মানুষের চিন্তা-চেতনা প্রসবে।

সক্রেটিস ছিলেন অর্থ বিত্ত মোহহীন একজন সাদামাটা মানুষ। সংসারের প্রতি কিছুটা উদাসীন।

একদিন ঘরে বসে একাগ্রচিত্তে একটি বই পড়ছেন তা দেখে উনার স্ত্রী জ্যানথিপি রেগে গিয়ে ভিষণ বকাঝকা শুরু করে দিল অবস্থা বেগতিক দেখে সক্রেটিস এবার ঘর ছেড়ে বাহিরে বসে বই পড়তে লাগল এ দেখে তার স্ত্রী রেগে গেল আরও বেশি তারপর এক বালতি পানি নিয়ে সক্রেটিসের মাথায় দিল ঢেলে বিপর্যস্থ সক্রেটিস একগাল হেসে বললেন “আমি আগেই বুঝেছিলাম, আকাশে যখন এত মেঘ গর্জেছে একপশলা বৃষ্টিত হবেই” একথা শুনে জ্যানথিপিও হেসে দিলেন। রাগ ক্ষোভ ভুলে অবশেষে ভালবাসায় একাকার হয়ে গেল দুজন।

শিক্ষাঃ জ্ঞানীরা সব পরিস্থিতি শান্ত মনে মোকাবেলা করে সুন্দর পরিবেশ তৈরি করে।

You May Also Like